তুলনামূলক শিক্ষার লক্ষ্য ও উদ্দেশ্য বর্ণনা করো

তুলনামূলক শিক্ষার লক্ষ্য ও উদ্দেশ্য বর্ণনা করো

উত্তর : 

তুলনামূলক শিক্ষা

একটি দেশের শিক্ষাব্যবস্থার উন্নয়নের জন্য বা সমস্যা সমাধানের জন্য যে বিদ্যায় বিভিন্ন দেশের শিক্ষাতত্ত্ব, শিক্ষাপ্রযুক্তি ও শিক্ষাসমস্যা সমাধানের পদ্ধতি বিষয়ে তুলনামূলক বিশ্লেষণের দ্বারা ব্যাপক ও গভীর ধারণা গড়ে তােলা যায় তাকে তুলনামূলক শিক্ষা বলে।

তুলনামূলক শিক্ষার লক্ষ্য :

বিশ্বের বিভিন্ন দেশের শিক্ষা সম্বন্ধে অধ্যয়নের মাধ্যমে শিক্ষার পরিবর্তন জানা সম্ভব হয়। শিক্ষার মান উন্নয়ন নির্ভর করে দেশের সার্বিক শিক্ষাব্যবস্থার উপর। বিভিন্ন দেশের শিক্ষায় আছে বৈচিত্র্য, নতুনত্ব ও উন্নয়নের মূলসূত্র। পাশাপাশি রয়েছে কিছু ভুলত্রুটি ও সনাতন তথ্য। তাই নানা দেশের শিক্ষাব্যবস্থা সম্বন্ধে অধ্যয়ন করে নিজ দেশের শিক্ষার মান উন্নয়ন করাই তুলনামূলক শিক্ষার প্রধান লক্ষ্য। শিক্ষাক্ষেত্রে উন্নয়নের অর্থই দেশ ও জাতির উন্নয়ন। উন্নত দেশগুলির শিক্ষা তুলনামূলকভাবে অধ্যয়ন করে দেশের শিক্ষার উন্নয়ন ও আধুনিক করার উদ্দেশ্যে নানারকম পদক্ষেপ গ্রহণ করা হয়ে থাকে। শিক্ষার অতীত ইতিহাস পর্যালােচনা করলে দেখা যায়, শিক্ষার প্রতি স্তরেই বিভিন্ন উদ্দেশ্যে বিশ্বের নানা দেশের শিক্ষা সম্বন্ধে অধ্যয়ন করা হয়। আর এই অধ্যয়ন শেষে দেশগুলাের শিক্ষা সম্পর্কে অভিজ্ঞতামূলক বিভিন্ন বইপুস্তক, প্রবন্ধ, গবেষণামূলক রিপাের্ট প্রকাশ করা হয়, যা নিজ দেশের শিক্ষাক্ষেত্রে আধুনিক রূপ আনতে সহায়তা করে।

তুলনামূলক শিক্ষার উদ্দেশ্য :

নির্দিষ্ট লক্ষ্যে পৌঁছানোর জন্য তুলনামূলক শিক্ষার মাধ্যমে কতিপয় উদ্দেশ্য অর্জন করা আবশ্যক। এই উদ্দেশ্যগুলি হলাে নিম্নরূপ—

1.বুদ্ধিবৃত্তিভিত্তিক উদ্দেশ্য : বিশ্বের বিভিন্ন দেশের শিক্ষাব্যবস্থা সম্পর্কে বিশেষভাবে জানা এবং তা পুঙ্খানুপুঙ্খরূপে অনুসন্ধান ও পর্যালােচনাপূর্বক নিজের জ্ঞানকে সমৃদ্ধ করার সুযােগ সৃষ্টি হয়। আর এর মাধ্যমে শিক্ষাবিজ্ঞান ও সামাজিক বিজ্ঞান বিষয়ক জ্ঞান অর্জন এবং অর্জনকৃত জ্ঞান প্রয়ােগের পথ প্রসারিত হয়। কেননা শিক্ষা এবং সমাজ ওতপ্রােতভাবে জড়িত।

2.পরিকল্পনাভিত্তিক উদ্দেশ্য : আধুনিক যুগের সব দেশেই উন্নয়নের লক্ষ্যে বিভিন্ন ক্ষেত্রে নতুন নতুন পদক্ষেপ গ্রহণ করছে। সেইজন্য শিক্ষাক্ষেত্রেও গৃহীত হচ্ছে নানান কর্মসূচি এবং প্রণীত হচ্ছে তার পরিকল্পনা। দেশের জনগণের স্বার্থে এবং সার্বিক উন্নয়নের লক্ষ্যে পরিকল্পনা ও কর্মসূচি বাস্তবায়নের ক্ষেত্রকে ত্রুটিমুক্ত রাখার জন্য বিশেষ দৃষ্টি দেওয়া হচ্ছে।

3.উপযােগিতাভিত্তিক উদ্দেশ্য : শিক্ষার অগ্রগতির সঙ্গে-এর অর্থনৈতিক মূল্যও সুপ্রতিষ্ঠিত হয়। বিশ্বের অনেক দেশেই আজ মাধ্যমিক স্তরে কর্মঅভিজ্ঞতা অর্জনমূলক শিক্ষা চালু রয়েছে যা পাঠক্রমের অন্তর্ভুক্ত। বিশেষ করে চিন, জাপান, কোরিয়া, নিউজিল্যান্ডের শিক্ষাব্যবস্থায় কার্যঅভিজ্ঞতামূলক শিক্ষার প্রচলন দেখা যায়। ফলে আবশ্যিক বিষয় হিসাবে শিক্ষার্থীরা কর্মঅভিজ্ঞতা অর্জন করে। এর মাধ্যমে দেশের অর্থনৈতিক উন্নতির ক্ষেত্রে সহায়তা হয়ে থাকে। অন্যদিকে বাংলাদেশ, ভারতবর্ষসহ বিশ্বের অনেক দেশে এর বিপরীত অবস্থা বিরাজমান। বৃত্তিমূলক শিক্ষার অগ্রসরতার কারণে বেকার সমস্যা ক্রমেই বৃদ্ধি পাচ্ছে, একইসঙ্গে ব্রেনড্রেনও হচ্ছে। অর্থাৎ উন্নয়নশীল ও মধ্য আয়ের দেশগুলাের মেধা উন্নত দেশে পাচার হচ্ছে বলা যায়। তাই অনুন্নত ও উন্নয়নশীল দেশগুলিতে সমস্যা রয়ে যাচ্ছে। ফলে আধুনিক শিক্ষার ক্ষেত্র হচ্ছে ত্রুটিপূর্ণ। আর এই সমস্যা সমাধানের জন্য তুলনামূলক শিক্ষার আঙ্গিকে প্রয়ােগমুখী শিক্ষা প্রচলনের জন্য বিষয়টির উপর জোর দিতে হবে।

4.উদ্ভাবনীভিত্তিক উদ্দেশ্য : শিক্ষাক্ষেত্রে গতানুগতিক ধারার কর্মসূচি পরিবর্তিত হয়ে বর্তমানে প্রবর্তন হয়েছে উদ্ভাবনীমূলক কর্মসূচি। শিক্ষায় ব্যবহৃত হচ্ছে বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি এবং সেইসঙ্গে দেখা যাচ্ছে গণমাধ্যমের উপস্থিতি। দূরশিক্ষণ পদ্ধতি, মডিউলার পদ্ধতি, ডিজিটাল মাধ্যম প্রভৃতি জ্ঞানের বিকাশকে প্রসারিত করেছে। শ্রেণিকক্ষে ব্যবস্থাপনা, শিখন, শেখানাের পদ্ধতি, উপকরণের ব্যবহার, শিক্ষক-শিক্ষার্থী সম্পর্ক, শিক্ষকের ব্যবহার ইত্যাদি বিষয়ে উন্নত দেশগুলােতে প্রচুর গবেষণা হয়েছে। সেই গবেষণালব্ধ জ্ঞান অনুন্নত, উন্নয়নশীল দেশের শিক্ষাব্যবস্থায় প্রয়ােগ করা হচ্ছে।

বর্তমান বিশ্বের নানা দেশের শিক্ষাব্যবস্থা তুলনামূলক শিক্ষার মাধ্যমে প্রকাশ করা হচ্ছে। ফলে দেশে দেশে শিক্ষাক্ষেত্রের পরিবর্তন হচ্ছে, প্রবর্তন হচ্ছে আধুনিক পদ্ধতি ও বিষয়াদি, যা যুগের চাহিদা মেটাতে সমর্থ। আমাদের দেশেও আজ শিক্ষার বিভিন্ন স্তরে পরিবর্তনের জোয়ার এসেছে। এরই সূত্র ধরে শিক্ষাক্রম, শিক্ষাপদ্ধতি ও শ্রেণি ব্যবস্থাপনায় সংস্কার করা হচ্ছে। অনুসরণ করা হচ্ছে উন্নত বিশ্বের মনস্তত্ত্ব, দার্শনিক ও শিক্ষাবিদগণের মতামত। বলা যায়, যুগের সঙ্গে মিল রেখে এগিয়ে যাওয়ার প্রচেষ্টা অব্যাহত রয়েছে।

Note: এই আর্টিকেলের ব্যাপারে তোমার মতামত জানাতে নীচে দেওয়া কমেন্ট বক্সে গিয়ে কমেন্ট করতে পারো। ধন্যবাদ।

Leave a Comment

error: Content is protected !!